উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করুন খুব সহজেই।

উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করুন সামান্য কয়েকটি স্টেপ ফলো করেই।

উইন্ডোজ বর্তমান সময়ে সবচেয়ে জনপ্রিয় অপারেটিং সিস্টেম। তবে শুধু মাত্র বর্তমান বললেই ভুল হবে, কেননা কেবল বর্তমান নয় এটি সর্বকালের সবচেয়ে জনপ্রিয় অপারেটিং সিস্টেম।

কিন্তু আমাদের মতো উন্নয়নশীল দেশ গুলোতে বেশির ভাগ ব্যবহারকারীর পক্ষেই উইন্ডোজের পেইড ভার্শন ব্যবহার করার সৌভাগ্য হয়ে ওঠে না। যার দরুন এখনও আমাদের উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করার মতো আর্টিকেল পড়তে হয়।

এক নজরে আজকের আর্টিকেলের বিষয়বস্তু-

বার বার উইন্ডোজ আপডেট কেন আসে?

মূলত মাইক্রোসফট তাদের উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেম আরো বেশি সিকিউর, ব্যবহার বান্ধব এবং শক্তিশালী করার উদ্দেশ্যেই প্রতিনিয়ত আপডেট দিয়ে থাকে। অর্থাৎ অপারেটিং সিস্টেমের নিরাপত্তা এবং স্থিতিশীলতার জন্যেই উইন্ডোজ আপডেট অনেক অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ন।

কোন অপারেটিং সিস্টেমই ১০০% সিকিউর বলা যায় না। কেননা যে কোন সফটওয়্যারেরই কিছু না কিছু ত্রুটি থেকেই যায়। যাকে কম্পিউটারের ভাষায় বাগ বলা হয়ে থাকে। আর হ্যাকাররা প্রতিনিয়ত বিভিন্ন সার্ভার থেকে শুরু করে সফটওয়্যার হ্যাক এবং ক্রাক করার কাজে লেগে থাকে।

আর তাই উইন্ডোজের ক্ষেত্রে ও মাইক্রোসফট প্রতিনিয়ত বিভিন্ন সিকিউরিটি, বাগ ফিক্স বা ত্রুটি বিচ্যূতির সমাধান এবং নিত্য নতুন ফিচার এর জন্য তাদের উইন্ডোজ এর আপডেট নিয়ে আসে। যার কারনে আপনার অপারেটিং সিস্টেম নিয়মিত আপডেট করা উচিৎ।

আরো পড়ুন –

কেন এবং কখন উইন্ডোজ আপডেট বিরক্তিকর?

এখন প্রশ্নটি মাথায় আসতেই পারে, উইন্ডোজ আপডেটের এত এত ভালো দিক থাকা সত্বেও তাহলে মানুষ কেন উইন্ডোজ আপডেট বন্ধ করতে চায়?

আসলে সমস্যাটি আগেই বলেছি, আমাদের মতো উন্নয়নশীল দেশ গুলোতে বেশির ভাগ ব্যবহারকারীর পক্ষেই উইন্ডোজের পেইড ভার্শন ব্যবহার করার সৌভাগ্য হয়ে ওঠে না। যার কারনে আমরা উইন্ডোজের ক্রাক ভার্শন ব্যবহার করে থাকি।

আর উইন্ডোজ এর যত ভালোই ক্রাক ভার্শন ব্যবহার করেন না কেন, আপনি যখন উইন্ডোজটি আপডেট দিবেন তখন আপনার কম্পিউটারের প্রোপার্টিজে “Windows is Activated” থাকা সত্বেও “Your Windows license will expire soon” মেসেজ আসতে থাকবে। আর সমস্যা কেবল এখানেই শেষ নয়। “license expire” মেসেজটি আসার পর থেকে আপনার কম্পিউটারটি হঠাৎ করেই স্লো কাজ করা শুরু করবে।

উইন্ডোজ আপডেট বন্ধ করার পেছনে আরো একটি কারন হলো। আমাদের দেশের বেশির ভাগ মানুষ মোবাইল ডাটার মাধ্যমে ইন্টারনেট ব্যবহার করে থাকি, যেখানে ডাটার পরিমান সীমিত। কিন্তু মাঝে মধ্যেই উইন্ডোজের আপডেট ফাইলের সাইজ ১ গিগাবাইটের উপর হয়ে থাকে। যার কারনে আপনার অজান্তেই এবং অনুমতি ছাড়াই সয়ংক্রিয় ভাবে আপনার সীমিত ডাটা শেষ হয়ে যেতে থাকে।

তাছাড়া অনেক সময় পিসি চালু বা বন্ধ করার সময় এই আপডেট ফাইল গুলো ইনস্টল হয়ে থাকে। যা কেবল একটি সময় সাপেক্ষ ব্যাপার নয় বরং বিরক্তিকর ও বটে।

উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করার উপায়

উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ কারার প্রচলিত এবং জনপ্রিয় ৩টি উপায় সম্পর্কে নিম্নে আলোচনা করা হলো।

1. উইন্ডোজ আপডেট সার্ভিস

উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ কারার সবচেয়ে কার্যকরী উপায় হচ্ছে উইন্ডোজ আপডেট সার্ভিস বন্ধ করে। উইন্ডোজ আপডেট সার্ভিস এর মাধ্যমে উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করতে নিচের পদ্ধতিটি অনুসরন করুন।

> Start Menu
> Run
> Type services.msc and Press Enter
> Windows Update
  • প্রথমে “Start Menu” থেকে “Run” অ্যাপটি ওপেন করুন। বা সর্টকাট ব্যবহার করতে “Win+R” প্রেস করুন।
  • এখন Run Command এ টাইপ করুন services.msc অতপর Enter প্রেস করুন।
উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ
  • উপরের ছবির ন্যায় একটি উইন্ডো ওপেন হবে। এখানে আপনার উইন্ডোজের সার্ভিস গুলো দেখা যাবে। এখন স্ক্রল করে একদম নিচে গিয়ে Windows Update সার্ভিসটি খুজে বের করুন।
  • উপরের ছবিটি লক্ষ্য করুন। এখানে General অপশন থেকে Startup type এ Disable সিলেক্ট করুন। এবং Service Status প্রথম অবস্থায় Running থাকবে, সেটি Stop করে দিন।
  • আপনি যদি পুনরায় কখনো আপডেট অপশনটি চালু করতে চান তাহলে শুধু Startup type এ Automatic সিলেক্ট করে দিলেই হবে।
  • তবে আরো একটি কাজ বাকি রয়েছে, এবার পাশের Recovery অপশনে ক্লিক করুন। এখানে First failure এ “Take no action” সিলেক্ট করুন। অতপর Apply এবং OK বাটনে ক্লিক করুন।

2. গ্রুপ পলিসি এডিট অপশন

আপনি যদি মনে করেন উইন্ডোজ আপডেটে আপনার তেমন কোন সমস্যা নেই। কিন্তু আপনি চান না আপনার অনুমতি ব্যাতিত উইন্ডোজ আপডেট হোক বা তা ইনস্টল হোক তাহলে এই অপশনটি আপনার জন্য।

গ্রুপ পলিসি এডিট অপশন ব্যবহার করে উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ বা নিয়ন্ত্রন করতে নিচের প্রক্রিয়াটি অনুসরন করুন।

> Start Menu
> Run
> Type gpedit.msc and Press Enter
> Local Group Policy Editor
> Computer Configuration
> Administrative Templates
> Windows Components
> Windows Update
> Configure Automatic Updates
  • প্রথমে “Start Menu” থেকে “Run” অ্যাপটি ওপেন করুন। বা সর্টকাট ব্যবহার করতে “Win+R” প্রেস করুন।
  • এখন Run Command এ টাইপ করুন gpedit.msc অতপর Enter প্রেস করুন।
  • এখন “Local Group Policy Editor” এর উইন্ডো ওপেন হবে। অতপর Computer Configuration > Administrative Templates > Windows Components > Windows Update > Configure Automatic Updates সিলেক্ট করুন।
উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ
  • উপরের ছবিটি লক্ষ্য করুন। এখানে অপশনটি Not Configured অবস্থায় থাকবে। প্রথমে অপশনটি Enable করুন। এবং Configure automatic updating থেকে ২ নাম্বার অপশন তথা Notify for download and auto install অপশনটি সিলেক্ট করুন। সাথে Every Week অপশনটি মার্ক করা থাকলে সেটি আন মার্ক করে দিন। অতপর Apply এবং OK বাটনে ক্লিক করুন।

3. মিটার্ড কানেকশন ব্যবহার করে

মিটার্ড কানেকশন হলো মূলত ডাটা লিমিটের সাথে সম্পর্কিত। এর অর্থ হলো আপনি আপনার কম্পিউটারের ডাটার ব্যবহার একটি লিমিটের মধ্যে রাখতে চান। অর্থাৎ আপনার অনুমতি ব্যাতিত কম্পিউটারটি অতিরিক্ত কোন প্রকার ফাইল ডাউনলোড করতে পারবে না। মিটার্ড কানেকশন ব্যবহার করে আপনি খুব সহজেই আপনার উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করতে পারেন।

তবে এক্ষেত্রে লক্ষ্য রাখতে হবে আপনি যদি ওয়াইফাই ব্যবহার করেন তাহলে মিটার্ড কানেকশন আপনার ওয়াইফাই সেটিংস থেকে চালু করতে হবে। আর যদি আপনি ল্যান লাইন ব্যবহার করেন তাহলে Ethernet সেটিংস থেকে চালু করতে হবে।

মিটার্ড কানেকশন চালু করতে নিচের প্রক্রিয়া অনুসরন করুন –

> Start Menu
> Settings
> Network & Internet
> Select your network Wifi or Ethernet
  • প্রথমে Start Menu থেকে Settings এ প্রবেশ করুন। যাকে আমার কন্ট্রোল প্যানেল বলে থাকি। আপনি চাইলে “Win+I” শর্টকাট ব্যবহার করতে পারেন।
  • অতপর “Network & Internet” অপশনে ক্লিক করুন।
  • এখন Status এ আপনার এই মুহুর্তে ব্যবহৃত কানেকশনটি দেখাবে। আপনার ব্যবহৃত কানেকশনের Properties এ ক্লিক করে “Metered Connection” অপশন থেকে “Set as metered connection” On বা চালু করে দিন।
  • তবে সেটা যদি না করতে চান তহলে Left Side bar থেকে আপনার ব্যবহৃত কানেকশনটি সিলেক্ট করুন। আপনি যদি ওয়াইফাই ব্যবহার করেন তাহলে এখানে Wireless Network বা Wifi নামক অপশন দেখতে পাবেন। এবং আপনি যদি ল্যান লাইনের মাধ্যমে ইন্টারনেট ব্যবহার করে থাকেন তাহলে Ethernet অপশন দেখতে পাবেন। Metered Connection সেখান থেকেও চালু করতে পারেন।

উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ এবং চালু কারা সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে ক্লিক করু

=শেষ কথা=

উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করার জন্য প্রথম অপশনটি সবচেয়ে বেশি কার্যকরী। তবে আপনি চাইলে এই তিনটি প্রক্রিয়া একই সাথে ও ব্যবহার করতে পারেন বা যে কোন একটি ব্যবহার করতে পারেন।

উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করার এই আর্টিকেলটি ধৈর্য্য সহকারে পড়ার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ। পরবর্তী আর্টিকেল আসা পর্যন্ত ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন।

Share this

Leave a Comment